নিজের কুকীর্তি ঢাকতে মেয়ের অশ্লীল ভিডিও ধারণ করলেন মা

ফেনীর দাগনভূঞায় ১৩ বছরের এক কিশোরীর অশ্লীল ভিডিও ধারণ করার অভিযোগ উঠেছে মা ও ফুফাতো ভাইয়ের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় রোববার দাগনভূঞা থানায় মা ও ফুফাতো ভাইয়ের বিরুদ্ধে পর্নোগ্রাফি আইনে মামলা করেন ভুক্তভোগী কিশোরী। অভিযুক্তরা হলেন-

ফেনী সদর উপজেলার বাথানিয়া গ্রামের প্রবাসীর স্ত্রী তিন সন্তানের জননী সুলতানা আক্তার সাদিয়া ও দাগনভূঞা উপজেলার আশরাফপুর গ্রামের তানভীর। সম্পর্কে তারা মামি-ভাগনে। মামলার এজাহারে ভুক্তভোগী কিশোরী উল্লেখ করেন, দীর্ঘদিন ধরে তার মা সাদিয়ার সঙ্গে ফুফাতো ভাই তানভীরের অনৈতিক সম্পর্ক চলছিল। একদিন তাদের অন্তরঙ্গ মুহূর্ত দেখে ফেলেন ১৩ বছরের মেয়েটি।

ঘটনা ফাঁস হওয়ার ভয়ে ২৪ মে রাত ২টার দিকে ওই কিশোরীর ঘুমন্ত অবস্থায় নগ্ন ভিডিও মোবাইলে ধারণ করেন সাদিয়া ও তানভীর। একপর্যায়ে ঘুম ভেঙে গেলে এ ঘটনার প্রতিবাদ করেন ভুক্তভোগী কিশোরী। এরপর সাদিয়া-তানভীরের সম্পর্কের বিষয়টি কাউকে জানালে ধারণ করা ভিডিও ইন্টারনেটে ছেড়ে দেওয়ার হুমকি দেন। ভুক্তভোগীর চাচা জানান, দীর্ঘদিন ধরে ভাইয়ের স্ত্রী তার ভাগনের সঙ্গে অনৈতিক সম্পর্ক করে আসছিলেন।

প্রতিবাদ করায় ভাতিজির নগ্ন ভিডিও ধারণ করে উল্টো মেরে ফেলার হুমকি দেন তারা। আসামিদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন তিনি। অভিযুক্তদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানান দাগনভূঞা থানার ওসি ইমতিয়াজ আহমেদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *